অস্ট্রেলিয়া সফরে ভারতের প্রথম একাদশ, দলে একাধিক পরিবর্তন!

গত অস্ট্রেলিয়া সফরেই ভারতীয় ক্রিকেটে পরিবর্তন আসে টেস্টের আসরে। সময়টা ২০১৪ সাল। টেস্টের আসরে অধিনায়কত্ব ছাড়ার পাশাপাশি পাঁচ দিনের ক্রিকেট থেকেই অবসর নিয়ে নেন কিংবদন্তি ভারত অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। ২৬ ডিসেম্বর বক্সিং ডে-এর দিন শুরু হওয়া মেলবোর্ন টেস্টে ভারত একম্যাচ বাকি থাকতে সিরিজ খোয়ানোয় তীব্র সমালোচনা শুনতে হয় ধোনিকে। ভারতের সর্বকালের সেরা অধিনায়ক আর দেরি করেননি, সঙ্গে সঙ্গে তখনকার তরুণ ক্রিকেটার বিরাট কোহলির জন্য জায়গা ছেড়ে দেন। অধিনায়কত্বের ভার গিয়ে ওঠে বিরাট কোহলির হাতে।

সেবার বর্ডার-গাভাস্কার ট্রফিতে বিরাট আবার খুব ভালো ব্যাট করেছিলেন। ফলে, তাঁকে অধিনায়ক করার জন্য পরামর্শের ঝড় উঠেছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়। যাইহোক তারপর থেকে বিরাট আমলে টেস্ট ক্রিকেটে শীর্ষে উঠে আসে ভারত। তবে, ২০১৬ ও ২০১৭ সালটা উপমহাদেশের মাটিতেই কাটিয়েছে টিম ইন্ডিয়া। পারফর্ম্যান্স গ্রাফ তাই চড়চড় করে উপরের দিকে উঠেছে।

ব়্যাঙ্কিংয়ে এগোলেও ভারতের জারিজুরি নিয়ে সন্দেহ ছিল বিশেষজ্ঞ ও সমালোচকদের মধ্যে। ২০১৮ সালে তিনটি বিদেশ সফরের ওপর অধিনায়ক বিরাট কোহলির মার্কশিট লেখার জন্য অধীর অপেক্ষায় সমালোচকরা। প্রথম দু’টি হার্ডলে ব্যর্থ টিম ইন্ডিয়া। বছরের শুরুতে দক্ষিণ আফ্রিকায় গিয়ে ২-১ ব্যবধানে হার তিন ম্যাচের সিরিজে। আর ইংল্যান্ডের মাটিতে ৪-১ ফলাফলে পাঁচ ম্যাচের সিরিজ খোয়াতে হয়েছে। চলতি বছর শেষ পর্যায়ে একেবারে। নভেম্বরে ভারত অস্ট্রেলিয়া যাবে। সেখানে টি-২০ সিরিজ দিয়ে সফর শুরু করে চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজ শুরু ৬ ডিসেম্বর থেকে।

বর্তমানে ঘরের মাটিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের ফলাফল অস্ট্রেলিয়া সিরিজে অনেকটাই প্রভাব ফেলবে। সাম্প্রতিক সময়ে তারকাদের ব্যর্থতায় ভারতীয় টেস্ট দলে পরিবর্তন এসেছে। আগামী দল ঘোষণায় আরও পরিবর্তন লক্ষ্যণীয় হতে বাধ্য।

অস্ট্রেলিয়া সফরে ভারতের টেস্ট একাদশ –

১. রোহিত শর্মা

সীমিত ওভারের ক্রিকেটে ভারতীয় দলের সহঅধিনায়ককে অস্ট্রেলিয়া সফরের স্কোয়াডে অন্তর্ভুক্ত করার দাবি দিন দিন জোরদার হচ্ছে। বিশেষ করে সাম্প্রতিক সময়ে তিনি যেভাবে ধারাবাহিকতা দেখিয়ে আসছেন, তাতে দেশ-বিদেশের প্রাক্তন তারকারা রোহিতকে ভারতীয় টেস্ট দলে ফিরিয়ে আনার পরামর্শ দিচ্ছেন। আর তার পিছনে যুক্তিও আছে। রোহিত স্ট্রোক মেকিং প্লেয়ার। অস্ট্রেলিয়ার পিচে বাউন্স থাকে। উঁচু বাউন্সার পেলে ব্যাটের সামান্য ছোঁয়ায় রোহিত তা গ্যালারিতে পাঠিয়ে দিতে পারেন। এদিকে, রোহিত শর্মাকে টেস্টের আসরে ব্যর্থ বলা হলেও তিনি ছয় নম্বরে ব্যাট করেন। তাঁর যা খেলার স্টাইল এবং যে প্রতিভা, তাতে ওই পজিশন তাঁর জন্য নয়। ভারতীয় টেস্ট দলে এখন ভালো ওপেনিং ব্যাটসম্যানের অভাব। কেএল রাহুল ইংল্যান্ডে একটি ম্যাচ বাদে বাকি সুযোগে ব্যর্থ তারকা। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে কেএল প্রথম ম্যাচে হতাশ করেছেন। তিনি ব্যাকআপ ওপেনার হিসেবেই ঠিক আছেন স্কোয়াডে। এখানে বলা রাখা, সীমিত ওভারের ক্রিকেটে হিটম্যানের সফলতা আসে ওপেনিংয়ে আসার পরই। বিশেষজ্ঞরা চাইছেন, রোহিতকে দিয়ে ওপেন করানো হোক ভারতীয় ক্রিকেটের স্বার্থে। রোহিত সম্প্রতি নিজেও বলেছেন, তাঁকে সুযোগ দেওয়া হলে তিনি তৈরি।

২. পৃথ্বী শ

India’s cricketer Prithvi Shaw celebrates his century during the first day of the first cricket test match between India and West Indies in Rajkot, India, Thursday, Oct. 4, 2018. (AP Photo/Rajanish Kakade)

রাজকোট টেস্টে ডেবিউ মঞ্চে শতরান করে রেকর্ড করা মু্ম্বইয়ের আঠারো বছর বয়সী তারকাকে অস্ট্রেলিয়া সফরে অবশ্যই রাখা হবে। টিমে তরুণ রক্তের সঞ্চার প্রয়োজন বর্তমানে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে দুর্দান্ত ইনিংস খেলে মুরলি বিজয়ের রাস্তা আপাতত বন্ধ করে দিয়েছেন পৃথ্বী। শিখর ধওয়নকে টেস্টের আসরে আর বিবেচনার মধ্যেই আনতে চান না নির্বাচকরা। ফলে, অস্ট্রেলিয়া সফরে মুম্বই ঘরানার ওপেনিং জুটি পরখ করার সম্ভাবনা প্রবল। পৃথ্বী ডেবিউ টেস্টে শতরান করার পর জানিয়েছেন, ”রোহিত ভাইয়ার সঙ্গে অনেক ক্রিকেট খেলেছি। ওর থেকে অনেক কিছু শিখেছি।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: