আইপিএল টিম ও তাদের ফলোয়ার সংখ্যা; প্রথম স্থানে কে জানেন?

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের দ্বিতীয় দশকের সূচনার ঢাকে কাঠি যার মাধ্যমে পড়েছিল, সেই আইপিএল ২০১৮ মেগা অকশন এখন ইতিহাসের পাতায়। একাদশ আইপিএলে অংশ নিতে চলা আটটি ফ্র্যাঞ্চাইজি এখন নতুন করে টিম বানিয়েছে। ৭ এপ্রিলের আগে যে যার টিমকে ভালো করে তৈরি করে নিতে চায়, মানে দলে ক্রিকেটারদের একে অপরের সঙ্গে বোঝাপড়া তৈরি করে নিতে হবে এর মধ্যে। মেগা অকশন হলেও প্লেয়ার্স রিটেইনশন ও আরটিএম কোটা দেওয়া হয়েছিল, যাতে নির্দিষ্ট সংখ্যক ক্রিকেটারদের টিমে রেখে দিতে পারে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলি। তবে, এবারের মেগা অকসন কিন্তু সবকটি টিমের মধ্যে বেশ ভারসাম্য এনে দিয়েছে। কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব এবং দিল্লি ডেয়ারডেভিলস যা টিম বানিয়েছে, তাতে ২০১৮ আইপিএল জয়ের দাবিদার হিসেবে টুর্নামেন্ট শুরু করবে দুই ফ্র্যাঞ্চাইজি। সোশ্যাল মিডিয়া এখন এনিয়েই উত্তাল। আইপিএলের যেমন অফিসিয়াল অ্যাকাউন্ট আছে সোশ্যাল মিডিয়াগুলিতে, তেমনই ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলির নিজস্ব অফিসিয়াল অ্যাকাউন্ট আছে সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্মগুলিতে। টিমের সব খবরই সেখানে দেওয়া হয়। কিন্তু, জানেন কি, কোন টিম ফ্যান ফলোয়িংয়ের দক থেকে সবচেয়ে বেশি এগিয়ে আছে? জানেন না? তাহলে এবার জেনে নিন…

সোশ্যাল মিডিয়ায় জনপ্রিয়তার দিক থেকে আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলি

৮. রাজস্থান রয়্যালস – ৪৬ লক্ষ ফলোয়ার

গত দু’বছর নির্বাসনে থাকে রাজস্থান ফ্র্যাঞ্চাইজি জোরালো কামব্যাক করতে এবার মেগা অকশন থেকে দুর্দান্ত টিম বানিয়েছে। উদ্বোধনী আইপিএল চ্যাম্পিয়নদের ফেসবুক পেজে ফলোয়ার ৩৫ লক্ষ। মাইক্রো ব্লগিং সাইট ট্যুইটারে ৩৩ হাজার ট্যুইটসহ ফলোয়ারের সংখ্যা ৯ লক্ষ ৪৪ হাজার। আর ইনস্টাগ্রামে ফলোয়ার রয়েছে ১ লক্ষ ৬৪ হাজার। এবছর ভালো খেললে ফলোয়ার সংখ্যা আরও বাড়তে পারে

৭. দিল্লি ডেয়ারডেভিলস – ৫৭ লক্ষ ফলোয়ার

গত দশবছর ধরে আইপিএল ক্রিকেটে অংশ নিয়ে চলা দিল্লি ডেয়ারডেভিলস ফ্র্যাঞ্চাইজির ফেসবুক ফলোয়ার ৪৪ লক্ষ। সেদিক থেকে ট্যুইটারে ফলোয়ার সংখ্যা ২৪ হাজার ট্যুইটসহ ১০ লক্ষ। ফোটো শেয়ারিং ওয়েবসাইট ইনস্টাগ্রামে সেই তুলনায় অনেক কম ফলোয়ার সংখ্যা, তিন লক্ষের মতো। আইপিএল চ্যম্পিয়ন হলে এই সংখ্যা আরও বাড়বে।

৬. সানরাইজার্স হায়দরাবাদ – ৭৭ লক্ষ ফলোয়ার

২০১৩ সাল থেকে আইপিএল ক্রিকেটে যোগ দেওয়া সানরাইজার্স, সোশ্যাল মিডিয়াতে খুব জনপ্রিয়। আন্ডারডগ হিসেবে শুরু করলেও ২০১৬’তে খেতাব জিতে সবাইকে অবাক করে দিয়েছিল হায়দরাবাদের এই ফ্র্যাঞ্চাইজি। ফেসবুকে ফলোয়ার সংখ্যা ৫৭ লক্ষ, ট্যুইটারে ২৬ হাজারের ওপর ট্যুইটসহ ১৬ লক্ষ ৭০ হাজার ফলোয়ার। আর ইনস্টাগ্রামে ফলোয়ার সংখ্যা তিন লক্ষ ৭৫ হাজার।

৫. কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব – ১ কোটি চার লক্ষ ফলোয়ার

পাঞ্জাব ফ্র্যাঞ্চাইজিও আইপিএল ক্রিকেটে শুরু থেকে রয়েছে। এখনও পর্যন্ত খেতাব না জিততে পারলেও বেশ পপুলার প্রীতি জিন্টার টিম। ফেসবুকে ফলোয়ার ৮৩ লক্ষ। আর ট্যুইটারে ২৭ হাজার ট্যুইটসহ ফলোয়ার ১৬ লক্ষ ২০ হাজার। ইনস্টাগ্রামে ফলোয়ার সংখ্যা ৪ লক্ষ ৯৪ হাজার।

৪. রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর – ১ কোটি ৩৩ লক্ষ ফলোয়ার

আরসিবি টিম শুরু থেকেই আইপিএল ক্রিকেটে রয়েছে। গত দশ বছরে পাঞ্জাবের মতো খারাপ ফর্ম না চললেও, ব্যাঙ্গালোরের এই টিম একবারও কাপ জিততে পারেননি। একেবারে কাছে গিয়েও খালি হাতে ফিরতে হয়েছে। ফেসবুকে ফলোয়ার সংখ্যা ৯২ লক্ষ আর ট্যুইটারে ২৭ লক্ষ ১০ হাজার। ইনস্টাগ্রামে ফলোয়ার রয়েছে ১৪ লক্ষ। ভাবতে পারছেন, চ্যাম্পিয়ন হলে ফলোয়ার সংখ্যা কোথায় যেতে পারে!

৩. কলকাতা নাইট রাইডার্স – ১ কোটি ৪৬ লক্ষ

বলিউডের বাদশাহ শাহরুখ খানের টিম যে জনপ্রিয়তার দিকে সামনের সারিতে থাকবে, এটা জানা কথা। গত দশ বছরে প্রতিবারই খেতাব জয়ের দাবিদার হয়ে মাঠে নেমেছে দু’বারের আইপিএল চ্যাম্পিয়ন কেকেআর। ফেসবুকে ফলোয়ার সংখ্যা ১ কোটি ৫০ হাজার। ট্যুইটারে ফলোয়ার সংখ্যা ৩৬ লক্ষ ১০ হাজারের মতো, আর বাকি ফলোয়ার সংখ্যা ইনস্টাগ্রামে

২. চেন্নাই সুপার কিংস – ১ কোটি ৫৮ লক্ষ ফলোয়ার

রাজস্থানের মতো চেন্নাইও এবার আইপিএলে কামব্যাক করছে দু’বছরের নির্বাসনের সাজা কাটিয়ে। শুরু থেকেই আইপিএল ক্রিকেটে থাকা সিএসকে দু’বারের আইপিএল চ্যাম্পিয়ন এবং একাধিকবারের রানার্স-আপ। প্রথম আট বছরে চেন্নাই সবসময় উপরের দিকেই থেকেছে। ফেসবুকে ফলোয়ার সংখ্যা ১ কোটি ৮ লক্ষ। ট্যুইটারে আটাশ হাজার সাতশো ট্যুইটসহ ফলোয়ার সংখ্যা ৩৬ লক্ষ, আর ইনস্টাগ্রামে ফলোয়ার সংখ্যা বাদবাকিটা।

১. মুম্বই ইন্ডিয়ান্স – এক কোটি ৭৭ লক্ষ ফলোয়ার

তিনবারের আইপিএল চ্যাম্পিয়ন মুম্বই ইন্ডিয়ান্স গত দশ বছরে স্টার পাওয়ারে সবার সেরা। শচীন তেন্ডুলকরের কারণে শুরু থেকে নিতা আম্বানির টিমকে নিয়ে আলাদা আকর্ষণ থেকেছে। আর এখন রোহিত শর্মার নেতৃত্বে মুম্বই সেই আকর্ষণটাকে বজায় রাখছে। ফেসবুকেই মুম্বইয়ের ফলোয়ার সংখ্যা ১ কোটি ২০ লক্ষ। আর ট্যুইটারে এই সংখ্যা ৪২ লক্ষ ৯০ হাজার ৪০ হাজারের ওপর ট্যুইটসহ। ইনস্টাগ্রামেও সবাইকে ছাপিয়ে গিয়েছে মুম্বইয়ের ফলোয়ার সংখ্যা – ১৪ লক্ষেরও বেশি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: