ওডিআই ক্রিকেট ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি শূন্য’ করার নজির

একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট। নামটার সঙ্গে অনেক ইতিহাস জড়িয়ে। ১৯৭১ সালের জানুয়ারি মাসের কথা । অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ডের মধ্য়ে একটি টেস্ট ম্য়াচের প্রথম তিনদিন বৃষ্টির কারণে বাতিল হয়ে যায়। বাধ্য হয়ে আম্পায়ার ম্যাচ পরিত্যক্ত করার সিদ্ধান্ত নেন। কিন্তু, দর্শকদের খালি মুখে কি করে ফেরানো যায়। ফলে ম্যাচ করানোর সিদ্ধান্ত নেন আম্পায়ার। ঠিক হয়, দু’টি দল ৪০ ওভার করে ম্যাচ খেলবে। আর প্রত্যেকটি ওভারে আটটি করে বলা করা হবে। ১৯৭১ সালের ৫ জানুয়ারি সেই প্রথম একদিনের আন্তর্জিক ক্রিকেট খেলা। ম্যাচটি ৫ উইকেটে অস্ট্রেলিয়া জিতে নিয়েছিল। সাদা জামা ও লাল বলেই ওয়ান-ডে ম্যাচ খেলা হয়েছিল সেদিন। বর্তমান প্রজন্মে যাঁদের ক্রিকেট খেলা দেখা শুরু, তাঁদের কাছে ব্যাপারটা অবাক করে দেওয়ার মতো। ১৯৭৯ সালে চ্যানেল নাইনের কেরি প্যাকার আজকের রংচংয়ে জার্সি, ফ্লাডলাইট আর সাদা বলে ওয়ান-ডে ক্রিকেট শুরু করেছিলেন। নব্বইয়ের দশকেও সাদা জার্সির পাজামা ক্রিকেটের প্রচলন ছিল।

তখন শুধুমাত্র বিশ্বকাপ আর ত্রিদেশীর সিরিজ হলে রঙিন জার্সি আর সাদা বলে ওয়ান-ডে খেলা হতো। যাইহোক নতুন সহস্রাব্দে সেই ধারাটা একেবারেই বদলে গিয়েছে। পাজামা থেকে শুরু করে রঙিন জার্সি আর বলের রঙের রকমফের।, ওয়ান-ডে ক্রিকেট বিশ্বের অনেক নামাজাদা ব্যাটসম্যানকে উপহার দিয়েছে ক্রিকেটপ্রেমীদের কাছে। এরমধ্যে আজ অনেকে লেজেন্ড। আবার অনেকে ইতিহাসের পাতায় নামের ভিড়ে হারিয়ে গিয়েছেন। তবে, টেস্ট হোক কিংবা সীমিত ওভারের ক্রিকেট ব্যাটসম্যানের রান করার নিয়মটা একই। শূন্য থেকে শুরু করতে হয়। এমন অনেক নামজাদা ক্রিকেটার আছেন যাঁরা শূন্য রানে আউট হওয়ার রেকর্ড গড়েছেন। ক্রিকেটীয় ভাষায় পোশাকি নাম ডাক।

ওডিআই ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশি ‘ডাক’-এর নজির –

১০. ক্রিস গেইল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)

ক্যারিবিয়ান টিমের তারকা ক্রিকেটার ক্রিস গেইল ১৯৯৯-২০১৭ সালের মধ্যে এখনও পর্যন্ত ২৭৫টি ম্যাচ খেলেছেন। ৯৪২০ রান করে ফেললেও, ২৩ বার শূন্য রানে আউট হয়েছেন গেইল।

৯. ড্যানিয়েল ভেত্তোরি (নিউজিল্যান্ড)

প্রাক্তন কিউয়ি অধিনায়ক ২০১৫ বিশ্বকাপ খেলে অবসর নিয়েছেন। ১৯৯৭ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হওয়া ভেত্তোরি স্পিনিং অলরাউন্ডার ছিলেন। ২৯৫টি ওডিআই ম্যাচে ২৩ বার ডাক করার নজির রয়েছে ড্যানের নামের পাশে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: