সাফল্যের বিচারে এই ৬ ভারতীয় অধিনায়ক, ধোনির থেকেও এগিয়ে আছে!

দাদা বনাম ধোনি,এ বিতর্ক বাঙালির চিরকালের। তবে ভারতীয় ক্রিকেট ইতিহাসে সবচেয়ে সফল অধিনায়ক কে? এই প্রশ্ন উঠলে ক্রিকেটভক্তরা কার্যত দু’ভাগে ভাগ হয়ে যায়। একদলের বক্তব্য, সেরা ক্যাপ্টেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়, অন্য শিবিরের বক্তব্য এই বিষয়ে সবার আগে থাকবেন মহেন্দ্র সিং ধোনি।তবে তথ্য অনুযায়ী বিচার করলে দেখা যাবে এখনও পর্যন্ত ভারত টেস্ট অধিনায়ক পেয়েছে ৩৩ জনকে। একদিনের আর্ন্তজাতিক ম্যাচে দেশ অধিনায়ক পেয়েছে ২৩ জনকে। অন্যদিকে টি-২০ ক্রিকেটে ভারতকে নেতৃত্ব দিয়েছেন ৫ জন।এখন দেখার বিষয় ভারতের এমন ৬ জন ক্রিকেটারকে, দেশের ক্যাপ্টেন হিসাবে যাঁদের সাফল্যের হার একশো শতাংশ।

অনিল কুম্বলে

খুব বেশি দিন অধিনায়কের দায়িত্ব না পেলেও ২০০৭-০৮ এর মধ্যে কুম্বলে দেশকে ১৪টি টেস্টে নেতৃত্ব দিয়েছেন। যার মধ্যে ভারত জিতেছে তিনটিতে, হেরেছে ছ’টি এবং ড্র হয়েছে পাঁচটি টেস্ট। তবে, একদিনের ম্যাচে ক্যাপ্টেন হিসাবে কুম্বলের সাফল্য একশো শতাংশ। দেশকে তিনি মাত্র একটি একদিনের ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়েছেন। ২০০২ সালে তৎকালীন অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের অনুপস্থিতিতে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে একটি ম্যাচে কুম্বলে দলকে নেতৃত্ব দেন। সেই ম্যাচটিতে ভারত জয়লাভ করে।

রবি শাস্ত্রী

দু’জন টেস্ট অধিনায়ক যারা ভারতীয় টিমকে নেতৃত্ব দিয়েছেন এবং সাফল্য একশো শতাংশ, রবি শাস্ত্রী তাদের মধ্যে একজন। রবি ভারতকে একটিমাত্র টেস্টে নেতৃত্ব দিয়েছেন। সেটি ১৯৮৮ সালে চেন্নাইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে। সেই ম্যাচে বোলার হিসাবেও দারুন সফল ছিলেন তিনি। ম্যাচে ভারত ২৫৫ রানে জয়লাভ করে। সিরিজে সমতা ফিরিয়েছিল ভারত এই ম্যাচটি জয়ের ফলে।

ধোনির বয়স নিয়ে প্রশ্ন করা হলে, কোচ শাস্ত্রী যা বললেন তা একবার হলেও দেখে নিন!

সুরেশ রায়না

ভারতের টি-২০ অধিনায়ক হয়েছেন এমন পাঁচজন ক্রিকেটার আছেন।তাঁদের মধ্যে দু’জন রয়েছেন যাদের সাফল্য একশো শতাংশ। যার মধ্যে রায়না একজন। ২০১০ সালে জিম্বাবোয়ে সফরে অধিনায়ক হিসাবে অভিষেক হয় রায়নার। সেখানে সিরিজ জেতে ভারত। পরে ২০১১ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধেও সিরিজ জেতে রায়নার নেতৃত্বাধীন ভারত। দুটি সিরিজেই প্রতিপক্ষ টিমকে হোয়াইট ওয়াশ করেছিল ভারতীয় দল। 

এই পাঁচজন ভারতীয় ক্রিকেটারের জাতীয় টিমে ফিরে আসার সুযোগ নেই বললেই চলে!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: