তৃতীয় টেস্টের আগেই ভারতের জন্য খারাপ খবর!

গোটা ক্রিকেট-বিশ্বের নজর এখন চলতি অস্ট্রেলিয়া বনাম ভারতের টেস্ট সিরিজের ওপর। প্রথম টেস্ট ৩১ রানে হেরে গেলেও দ্বিতীয় টেস্টে ১৪৬ রানে জিতে দুর্দান্ত কামব্যাক করেছে টিম পেইনের নেতৃত্বাধীন অজি দল। তাঁর অধিনায়কত্বে এটাই অস্ট্রেলিয়ার প্রথম টেস্ট জয়। এমনকি বল বিকৃতি কাণ্ডের পর থেকেও এটাই প্রথম। স্মিথ-ওয়ার্নারহীন দুর্বল অস্ট্রেলিয়াকে কেউ খুব একটা পাত্তা দিচ্ছিল না সিরিজ শুরুর আগে। অনেকে মনে করছিলেন শক্তিশালী ভারত ৪-০ হোয়াইটওয়াশ করে দিয়ে যাবে। সে গুড়ে বালি পড়েছে ইতিমধ্যেই। পার্থ টেস্ট জিতে চনমনে মেজাজেই মেলবোর্নে খেলতে নামবে অজিরা। অন্যদিকে ভারত কিছুটা হলেও ব্যাকফুটে।

ওপেনারদের ফর্ম, অশ্বিনের চোট চিন্তায় রাখছে কোহলিকে। সেই সঙ্গে আরও একটা বিষয় আদৌ ভারতের পক্ষে কথা বলছে না, তা হল মেলবোর্ন স্টেডিয়ামে ভারতের টেস্ট রেকর্ড। ঐতিহাসিক এই মাঠে নিজেদের মধ্যে এখনও অবধি ১২টা টেস্ট খেলেছে ভারত এবং অস্ট্রেলিয়া। ভারত জিতেচ্যহে মাত্র দুটো। অস্বস্তিত বিষয় হল এই জয় সাম্প্রতিক নয়। একটা ১৯৭৮ এবং আরেকটা ১৯৮১ সালে পাওয়া। অস্ট্রেলিয়া জিতেছে আটটা টেস্ট এবং ড্র হয়েছে দুটো। শেষবার এই মাঠে দুই দলের সাক্ষাতের ফলাফল ড্র-ই হয়েছে। এরকম পরিসংখ্যান কিন্তু আদৌ স্বস্তি দিচ্ছে না ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্টকে।

ব্রিসবেনে প্রথম টেস্ট জিতলেও, সবদিক খতিয়ে দেখলে দেখা যাবে ভারতের জন্য অনেক কিছুই নেগেটিভ ঘটেছে। তরুণ প্রতিভা পৃথ্বী শ চোট পেয়ে ছিটকে গেলেন প্রথমেই। দুই ওপেনার মুরলী বিজয় এবং কে এল রাহুল জঘন্য ফর্মে। বাধ্য হয়ে ময়াঙ্ক আগরওয়ালকে দেশ থেকে উড়িয়ে আনা হয়েছে। রোহিত শর্মাকে খেলানোর পরিকল্পনা একদম কাজে তো লাগেইনি, উলটে চোট পেয়েছেন তিনি। প্রথম টেস্টে ভালো বল করার পর চোট পেয়ে ছিটকে গেছেন এক নম্বর স্পিনার রবিচন্দ্রন অশ্বিনও। বক্সিং ডে টেস্টে তাঁর জায়গায় জাদেজা ঢুকবেন সম্ভবত। এর সঙ্গে ওরকম বিশ্রী পরিসংখ্যান। যদিও কোহলির আত্মবিশ্বাসে ঘাটতি নেই। দেখা যাক, তাতে ভর করেই ভারত সিরিজে এগিয়ে যেতে পারে কি না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: