অজি মিডিয়াকে সাবধান করে দিলেন দাদা

অস্ট্রেলীয় মিডিয়ার দৌরাত্ম্যের কথা কে না জানে। তিল থেকে তাল করায় তাদের জুড়ি নেই। অ্যাশেজ সিরিজ হোক কি ভারতের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজ, চাপে পড়লেই প্রতিপক্ষ ক্রিকেটারদের অযথা আক্রমণ করতে শুরু করে অজি মিডিয়া। আর তাদের নিশানায় প্রথম টার্গেট বিপক্ষ দলের ক্যাপ্টেন। প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের থেকে এসব কে আর বেশি জানে। ব্রিসবেনে মহাকাব্যিক ১৪৪ রানের ইনিংস অবশ্য সেবার অজি মিডিয়ার থোঁতা মুখ ভোতা করে দিয়েছিল। এবার নিশানায় বিরাট কোহলি। তাঁর ব্যাটিং নিয়ে তো বলার সাহস কারও নেই। কিন্তু বিরাটের আচরণ নিয়ে ইতিমধ্যেই অস্ট্রেলীয় মিডিয়ায় হই হই পড়ে গিয়েছে। নিন্দার ঝড় উঠেছে সে দেশে। ইশান্ত শর্মা এবং রবীন্দ্র জাদেজার মাঠের মধ্যে তর্কাতর্কি পুরো বিষয়টায় আরও ইন্ধন জুগিয়েছে।

অজি মিডিয়াকে হাড়ে হাড়ে চেনা সৌরভ কিন্তু তাদের সাবধান করে দিয়েছেন। পার্থ টেস্ট জিতে সিরিজে সমতা ফিরিয়েছে অজিরা। কিন্তু সৌরভ মনে করছেন, ভারতের পক্ষে এই সিরিজ জিতে নেওয়া মোটেই অসম্ভব না। তিনি অজি মিডিয়াকে বলে দিয়েছেন, এই ভারতীয় দলের বাকি দুটো টেস্ট জেতার শক্তি রয়েছে। এক টুইটে তিনি লেখেন, ‘প্রচুর কথাবার্তা চলছে চারদিকে, বিশেষ করে অস্ট্রেলিয়ান মিডিয়ায়… কিন্তু অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে এই ভারতের ওপর নজর রাখুন… আরও দুটো টেস্ট বাকি এবং ভারত দুটোই জিততে পারে… আগে থেকে বেশি দূর ভাবার দরকার নেই।’

কথাগুল যে অজি মিডিয়াকে উদ্দেশ্য করে লেখা তা সবাই বুঝতে পারছে। এখন দেখা যাক কোহলিরা সৌরভের কথার কতটা দাম দিতে পারেন। শেষ দুই টেস্টের জন্য চোটপ্রাপ্ত পৃথ্বী শয়ের জায়গায় ময়াঙ্ক আগরওয়ালকে দেশ থেকে উড়িয়ে আনা হয়েছে। চোট থেকে সেরা ওঠা অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়াকেও দলে ডাকা হয়েছে। আগামী ২৬ ডিসেম্বর মেলবোর্নের মাঠে শুরু হচ্ছে ঐতিহ্যের ‘বক্সিং ডে টেস্ট’।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: