আইপিএল ২০১৮: দিল্লি ম্যাচের জন্য কলকাতার প্রথম একাদশ!

এবারের আইপিএল মরশুমের শুরুতেই রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরকে ঘরের মাঠে পর্যদুস্ত করার পর বেশ খুশির হাওয়া বইছিল নাইট শিবিরে। ফুরেফুরে মেজাজে ছিল ড্রেসিং রুম। বলা হচ্ছিল, নতুন অধিনায়ক নিয়ে তাহলে কোনও সমস্যাই নেই। নতুন ঘরে টিমের সঙ্গে নিজের মানসিকতাটা তাহলে মানিয়েই নিয়েছেন কার্তিক। কিন্তু, এক সপ্তাহের ব্যবধানে ছবিটা অনেকটাই বদলেছে। ফুরফুরে মেজাজ উধাও, কপালে চিন্তার ভাঁজ টিম ম্যানেজমেন্টের। গতসাত বছরে যে ক্রিকেটারটির নেতৃত্বে খেলে টিম দু’বার চ্যাম্পিয়ন হয়েছে, সেই গৌতম গম্ভীর তার দলবল নিয়ে রবিবারই চলে আসছে শহরে।

সোমবার (১৬ এপ্রিল) দিল্লি ডেয়ারডেভিলসের সঙ্গে নাইটদের ম্যাচ। পয়েন্ট টেবিলে পয়েন্ট সংখ্যা সমান হলেও, বড়াই করা দেখানোর মতো কিছুই নেই গোতিকে। বরং, গোতিদেরই বলার মতো কিছু আছে বটে। প্রথম ম্যাচে বাদ দিলে দ্বিতীয় ম্যাচে বৃষ্টি না হলে ডেয়ারডেভিলসরা ম্যাচ জিতত। আর তৃতীয় ম্যাচে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন মুম্বই ইন্ডিয়ান্সকে হারিয়েছে তারা। সেদিক থেকে কলকাতার কপাল খারাপ হওয়া শুরু চেন্নাই সুপার কিংস ম্যাচ থেকে। অতো রান তুলেও থামানো যায়নি ধোনিদের। তারপর শনিবার ঘরের মাঠে সানরাইজার্সের কাছে মুখে চুনকালি মাখতে হয়েছে। যে সানরাইজার্স কোনওদিন ইডেন থেকে জিতে বাড়ি ফিরতে পারেনি, তারা এবার নন্দনকাননে বিজেতা।

মিচেল স্টার্কের পর কমলেশ নাগারকোটি চোট পেয়ে টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে যাওয়ায় পেস বোলিং এখন শুধুমাত্র মিচেল জনসন, টম কুরান কেন্দ্রিক হয়ে পড়েছে কলকাতার। বিনয় কুমারের ওপর টিম ভরসা দেখাতে পারেনি দ্বিতীয় ম্যাচে, যেভাবে শেষ ওভারে দলকে ডোবান তিনি। চতুর্থ ম্যাচে সমস্যা হলো, যাঁর নেতৃত্বে দিল্লি খেলবে সোমবার, সেই তিনি ইডেনকে খুব ভালো করে চেনেন। ম্যাচ হারলেও, অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপজয়ী ভারতীয় দলের দুই সদস্যকে দিল্লি ম্যাচেও খেলানোর কথা। বরং কলকাতার ভুল হলো, নারিন-লিন ওপেনিং জুটি ভেঙে উথাপ্পাকে তিন নম্বর থেকে ওপরে তোলা।

কলকাতা নাইট রাইডার্সের সম্ভাব্য প্রথম একাদশ –

১. সুনীল নারিন

ব্যাটিং অর্ডারকে নাড়াচড়া করায়, গত ম্যাচে নারিন সুবিধা করতে পারেননি চার নম্বরে নেমে। গত বছর থেকে ওপেন করছেন নারিন। ওই জায়গাটাতে তিনি নিজেকে মানিয়ে নিয়েছেন। আর চার নম্বরে এমন একজনকে চাই যিনি ধরে খেলতেও জানেন। নারিনের ব্যাটিং ওপেনিংয়ে, আর নাহলে ছয়-সাত নম্বরে উপযোগী। আর বোলিংয়ের দিকে নজর দিলে, নারিন মিস্ট্রি বোলিং অ্যাকশন পরিবর্তন করলেও, উইকেট নিচ্ছেন।

২. ক্রিস লিন

টিমের হেভিওয়েট তারকা গত ম্যাচে ভালো ব্যাটিং করেছেন। গত দু’টি ম্যাচেই লিনের ব্যাটিং দেখে স্বস্তিতে টিম। ওপনিংয়ে তিনি ঠিক আছেন, কিন্তু কথা হলো, পরের দিক লিনকে সঙ্গ দিতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: