বুমরার ‘গতিতে’ মজেছেন এই ইংল্যান্ডের মহিলা দলের খেলোয়াড়!

বহু প্রতীক্ষিত অস্ট্রেলিয়া বনাম ভারতের টেস্ট সিরিজ শুরু হতে আর ২৪ ঘণ্টাও বাকি নেই। এর আগে মোট ১১বার অজি সফরে গেলেও একবারও সিরিজ জিতে আসতে পারেনি ভারতীয় দল। কিন্তু এই প্রথমবার, ভারতকেই ফেভারিট মানছেন প্রাক্তন ক্রিকেটার থেকে বিশেষজ্ঞরা। নির্বাসনের কারণে স্মিথ এবং ওয়ার্নারের না থাকা যদি একটা কারণ হয় তো ভারতের পেস আক্রমণকেও অন্যতম কারণ বলে মনে করছেন সবাই। প্রায় প্রত্যেক ভারতীয় পেসারেরই ১৪০ কিমি প্রতি ঘণ্টায় বল করার ক্ষমতা রয়েছে। প্রাক্তন মহিলা ইংলিশ ক্রিকেটার এবং বর্তমানে ধারাভাষ্যকার ঈশা গুহ বিশেষভাবে যশপ্রীত বুমরার বলের গতি দেখে চমৎকৃত হয়েছেন।

অ্যাডিলেড টেস্টের আগে ভারতীয় ক্রিকেটারদের জন্য ঐচ্ছিক অনুশীলন ছিল। যেখানে রবি শাস্ত্রীর তত্ত্বাবধানে নেটে বল করছিলেন বুমরা। তার বলে ব্যাট করছিলেন চেতেশ্বর পূজারা। ঈশা গুহ জানান, এই সময়ে রীতিমতো আগুনে পেসে বল করছিলেন বুমরা। এত ছোট রান আপে কী করে এত গতি আনা সম্ভব তা নিয়েও বিস্ময় প্রকাশ করেন তিনি। শুধু তাই নয়, নেটের পিছনে দাঁড়িয়ে একটা ভিডিও রেকর্ড করে টুইটারে পোস্ট করে দেন ঈশা। যেখানে দেখা যাচ্ছে, বুমরার একটা প্রচন্ড গতিসম্পন্ন বাউন্সারের হাত থেকে বাঁচতে কোনওমতে মাথা নামিয়ে নিচ্ছেন পূজারা।

ওই ভিডিও পোস্ট করে ঈশা লেখেন, ‘এত ছোট রান আপে এত গতি কী করে আনতে পারে যশপ্রীত বুমরা তা দেখে সত্যিই চমৎকৃত। অবিশ্বাস্য গতি, মারাত্মক বাউন্সার।’ সীমিত ওভারের ক্রিকেটের জন্যই ভালো, টেস্ট ক্রিকেটে চলবে না, এরকম একটা ধারণা চলু ছিল বুমরাকে নিয়ে। এই বছরের গোড়ায় দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে টেস্ট সিরিজে সুযোগ দেওয়া দেওয়া হয় তাঁকে। তারপর থেকে সবাইকেই অবাক করে চলেছেন তিনি। বুমরাকে বাদ দিয়ে টেস্ট স্কোয়াড ভাবা সম্ভব হচ্ছে না এখন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: