ভদ্রলোকের খেলার পাঁচ স্বার্থপর ক্রিকেটার!

ক্রিকেট নাকি ভদ্রলোকের খেলা। অথচ এই তথাকথিত ভদ্রোলোকের খেলাই এমন কয়েকজন খেলেছেন, যাঁদের নিয়ে মাঝেমঝ্য়ে বড়াই করাও যায় না। কেউ তারকা, কেউ কিংবদন্তি, আবার কেউ সর্বকালের সেরা। কিন্তু, ক্রিকেটমাঠে তাঁদের কিছু আচরণ, তাঁদের অন্য় নামেও চেনায়। আসুন এই নিয়েই আজ একটু চোখ রাখা যাক। সর্বকালের কয়েকজন সেরা স্বার্থপর ক্রিকেটারের দিকে।

৫. জিওফ্রে বয়কট

নামটা দেখে অনেকেরই চমকে ওঠা স্বাভাবিক। গত প্রজন্ম এবং এ প্রজন্ম, জিওফ্রে বয়কটকে শ্রদ্ধার চোখে দেখে। কারণ, খেলা দেখতে শুরু করার সময় থেকেই বিগত প্রজন্মের একজন কিংবদন্তি ক্রিকেটার হিসেবে বয়কটের নাম শুনেছে ক্রিকেট ফ্য়ানেরা। তাঁর বর্ণময় ক্রিকেট কেরিয়ারে বয়কট এমন কিছু ঘটনার সঙ্গে জড়িত যে তাঁকে লোকজন স্বার্থপর বলতেন এবং বলেন। তিনি এতটাই স্বার্থপর ছিলেন যে বড় স্কোর করার জন্য় ধীর গতিতে ব্য়াটিং করতেন এবং সুযোগ বুঝে নিজের স্কোর করতেন। প্রয়োজনীয় মুহূর্তে দলের চাহিদা তাঁর কাছে গুরুত্ব পেতো না। ১৯৬৭ সালে এই কারণে অপরাজিত ২৪৭ রান করেও, বয়কটকে দল থেকে বাদ পড়তে হয়েছিল একবার।

৪. শাহিদ আফ্রিদি

শাহিদ খান ‘বুমবুম’ আফ্রিদি। গত প্রজন্মের সবচেয়ে প্রিয় ক্রিকেটার হিসেবে কারও নাম নিতে হলে লালার নাম আগে নিতে হবে। পাকিস্তান ক্রিকেটকে অনেক কিছু দিলেও, আফ্রিদি তাঁর ইগোর কারণে নিজের টিমমেটদের সঙ্গেই বহুবার ঝামেলায় জড়িয়ে পড়েছিলেন। তবে, ওইটুকু বাদ দিলে পাক টিমে লালা অলরাউন্ডার হিসেবে সম্পদ ছিলেন।

৩. রিচার্ড হ্য়াডলি

পরিসংখ্য়ানের দিক থেকে প্রাক্তন এই ক্রিকেটারটি নিউজিল্য়ান্ড ক্রিকেটের প্রবাদ পুরুষ। জিওফ্রে বয়কটের মতো এই ক্রিকেটারটিকে নিয়েও লোকজের মধ্য়ে নানা অভিযোগ ছিল। হ্য়াডলি খুব স্বার্থপর ক্রিকেটার ছিলেন। দলের জয় নয়, নিজের ব্য়ক্তিগত রেকর্ড এবং পরিসংখ্য়ানকে তুলে ধরে সতীর্থদের জ্ঞান দিতে ভালোবাসতেন রিচার্ড। এই কারণে নিজের টিমমেটরাই তাঁকে নিয়ে বিরক্ত হয়ে উঠতেন। পেস বোলিং এই অলরাউন্ডার নিজের ক্রিকেটার জীবনের শেষ পর্বে এসে কেরিয়ার দীর্ঘায়িত করার লক্ষ্য়ে এনার্জি বাঁচানোর জন্য় বোলিং রান-আপ কমিয়ে এনেছিলেন। ১৯৮৫ সালে অস্ট্রেলিয়ান সিজনের সেরা বিদেশি ক্রিকেটার নির্বাচিত হওয়ার প্রচুর অর্থ পেয়েছিলেন হ্য়াডলি। প্রথামিক সেই টাকা সতীর্থদের সঙ্গে ভাগ করে নেওয়ার বদলে হ্য়াডলি পুরোটাই নিজের কাছে রেখে দেন। সেই বদনাম এখনও মুখে মুখে ঘোরে লোকজনের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: