নিজের দলের নেতাকে গ্রেপ্তারির নির্দেশ দিলেন অনুব্রত

বিতর্ক আর অনুব্রত, এ যেন একে অপরের দোসর। এবার স্থান বোলপুরের দলীয় সন্মেলনের মঞ্চ। সেখান থেকেই নিজের দলের নেতা উজ্জ্বল কাদরিকে গ্রেফতারের নির্দেশ দিলেন অনুব্রত। রবিবার, বোলপুরে তৃণমূলের অফিসে জেলা কমিটির বৈঠক হয়। দলীয় সভায় কর্মীদের সামনেই খয়রাশোলের কাঁকরতলার তৃণমূলের ব্লক সভাপতি উজ্জ্বল কাদরিকে সেখানে গ্রেফতারের নিদান দেন অনুব্রত।

যদিও বিষয়ের গুরুত্ব লঘু করতে , কাদরি বলেন অনুব্রত মন্ডলকে দলের কেউ ভুল বোঝাচ্ছে। এই উজ্জ্বল কাদরি ছিলেন খয়রাশোলে বোমা মারার নায়ক। যদিও এবার দলীয় গোষ্ঠী কোন্দলের ঘটনায় খয়রাশোল ব্লকের কার্যকরী সভাপতি উজ্জ্বল কাদরিকে গ্রেফতারের নির্দেশ দিলেন বীরভূম তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। সূত্রের খবর শনিবার বীরভূমের কাকড়তলার বড়া গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় তৃণমূলের গোষ্ঠীর সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পঞ্চায়েতের মহিলা নেত্রীর বাড়িতে বোমা ছুড়ে হামলা চালানো হয় বলে অভিযোগ ওঠে। পুলিশের ওপরেও হামলা চলে আর এতেই চটেছে গ্রামের মানুষ।

তৃণমূলের একাংশ অভিযোগ করেছে পঞ্চায়েতের আড়াই কোটি টাকা কাজ নিয়ে গোটা ঘটনার সূত্রপাত এবং এই গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব পুরোপুরি উজ্জ্বল কাদরির মদতে হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। এরই জেরে স্থানীয় সভায় অনুব্রত সরাসরি উজ্জ্বল কাদরির গ্রেপ্তারের নির্দেশ দেন। তবে বিরোধীদের মতে এসবই বরাবরের নাটক এবং তোলার বখরা কম পাওয়ায় তৃণমূলী গোষ্ঠীদ্বন্ধের ঘটনা এই প্রথম নয়। এদিকে উজ্জ্বল কাদরিও নিজের সাফাই গাইতে ব্যস্ত এবংং পুরো ঘটনায় অনুব্রতকে দলের লোক ভুল বোঝাচ্ছে বলে তার দাবী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: